চট্টগ্রামে করোনা আক্রান্তের তালিকায় এবার ম্যাজিস্ট্রেট-আইনজীবী

0
334

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের সংক্রমণ থেকে চিকিৎসক, স্বাস্থ্যকর্মী, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্য, সাংবাদিক, আইনজীবী কেউ বাদ যাচ্ছে না। সর্বশেষ গত ২৪ ঘণ্টায় চট্টগ্রামে ৫০৪টি নমুনা পরীক্ষায় ৭৫ জনের করোনা শনাক্ত করা হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়ালো ৭১৬ জনে।

চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন ডা. সেখ ফজলে রাব্বি জানান, নতুন আক্রান্তদের মধ্যে একজন সাংবাদিক, একজন আইনজীবী ও জেলা প্রশাসনের এক নারী ম্যাজিস্ট্রেটও রয়েছেন। আইনজীবী ও ম্যাজিস্ট্রেটদের মধ্যে চট্টগ্রামে এ দুজনই প্রথম করোনা আক্রান্ত হলেন।

আক্রান্তরা হলেন- চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নাজমুন নাহার এবং আইনজীবী সেলিম উদ্দিন শাহিন।

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, শনিবার সিভিল সার্জন কার্যালয় থেকে ম্যাজিস্ট্রেট নাজমুন নাহারের করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার কথা জানানো হয়। বর্তমানে তিনি নিজ বাসায় আছেন। চিকিৎসকসহ সংশ্লিষ্টদের পরামর্শমতো বাসাতেই চিকিৎসা নিবেন তিনি।

জেলা আইনজীবী সমিতির সেক্রেটারি এএইচএম মোহাম্মদ জিয়াউদ্দিন জানান, আইনজীবী শাহিনের করোনা পজিটিভ আসে শনিবার। এখন তিনি তার হালিশহরের বাসায় আছেন। ঘরে থেকেই চিকিৎসকের পরামর্শ নিচ্ছেন।

এছাড়াও চট্টগ্রামে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন বেসরকারি ইন্ডিপেন্ডেন্ট টেলিভিশনের স্টাফ রিপোর্টার আহসান রিটন। এ নিয়ে চট্টগ্রামে মোট তিনজন সাংবাদিক করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

ইন্ডিপেন্ডেন্ট টেলিভিশনের ব্যুরো প্রধান অনুপম পার্থ বলেন, ‘গত ১০ তারিখ থেকে আমাদের সহকর্মী আহসান রিটন অসুস্থতা অনুভব করছিলেন। শনিবার তার নমুনার ফলাফল পজিটিভ এসেছে। এদিকে আমরা যারা হাউজে কর্মরত ছিলাম তাদের নমুনা পরীক্ষার ব্যবস্থা করা হচ্ছে।’

চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন সেখ ফজলে রাব্বি জানিয়েছেন, চট্টগ্রামের ফৌজদারহাটে বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ট্রপিক্যাল অ্যান্ড ইনফেকশাস ডিজিজেজ (বিআইটিআইডি) ল্যাবে ২২১ জনের নমুনা পরীক্ষায় ২৮ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। তাদের মধ্যে ১৯ জন চট্টগ্রাম নগরীর এবং বাকি ৯ জন অন্যান্য উপজেলার।

চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের (চমেক) ল্যাবে ৯১টি নমুনা পরীক্ষায় ৩৫ জনের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। সবাই চট্টগ্রাম জেলার বাসিন্দা।

এদিকে চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি অ্যান্ড অ্যানিম্যাল সায়েন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়ের (সিভাসু) ল্যাবে ১৮৩টি নমুনা পরীক্ষায় ১২ জনের করোনা শনাক্ত করা হয়েছে। তাদের মধ্যে সবাই চট্টগ্রামের বিভিন্ন উপজেলার বাসিন্দা।

চট্টগ্রাম জেলায় এ পর্যন্ত ৭১৬ জনের মধ্যে করোনাভাইরাস আক্রান্ত রোগী শনাক্ত করা হয়েছে। এর মধ্যে সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছেড়েছেন ১০০ জন। করোনায় মারা গেছেন ৩৩ জন। এছাড়া করোনা উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন ২০ জনের বেশি নারী-পুরুষ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here