চীনা পণ্য বর্জনের ডাক ভারতে, আইপিএল বলছে ‘না’

0
148

লাদাখের গালওয়ান উপত্যকায় সংঘর্ষে চীনা সেনাদের হামলায় ভারতের অন্তত ২০ সেনার মৃত্যু হয়। এ নিয়ে ভারতজুড়ে চলছে চীন বিরোধী ক্ষোভ-বিক্ষোভ। ভারতজুড়ে চীন পণ্য বর্জনের ডাক দিয়েছে দেশটির নাগরিকরা। ভারতীয় ক্রিকেটার হরভজন সিং থেকে শুরু করে অনেকেই বলছেন, চীনা পণ্য বর্জন করা হোক।

চীন বিরোধী মনোভাব তীব্র আকারে গড়ে ওঠার মধ্যেই আলোচনা উঠে গেছে আইপিএলে চীনা কোম্পানির স্পন্সরশিপ নিয়ে। আইপিএলের টাইটেল স্পন্সরশিপ ৫ বছরের জন্য কিনে নিয়েছে চীনা মোবাইল কোম্পানি ভিভো। যার মেয়াদ শেষ হবে ২০২২ সালে।

আইপিএলে চীনা কোম্পানির স্পন্সর- গালওয়ান সীমান্তে ভারতীয় সেনা হত্যার ঘটনায় যখন ক্ষোভ বাড়তে শুরু করেছে, তখন আইপিএল নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে। বলা হচ্ছে, আইপিএলেও চীনা কোম্পানির অর্থায়ন বন্ধ করতে হবে।

চারদিক থেকে এমন দাবি ওঠার পরিপ্রেক্ষিতে কথা বলেছেন ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড বিসিসিআইয়ের কোষাধ্যক্ষ অরুন ধুমাল। তিনি কিছুতেই আইপিএলে চীনা কোম্পানির অর্থায়নকে ‘না’ বলতে রাজি নন। বরং উল্টো বলছেন, চীনা কোম্পানির পৃষ্ঠপোষকতায় তো ভারতেরই লাভ হচ্ছে। প্রচুর পরিমাণে অর্থ আয় করা যাচ্ছে।

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড বিসিসিআই ভিভো থেকে প্রতি বছর ৪৪০ কোটি রুপি করে পেয়ে থাকে। ৫ বছরে যার পরিমাণ ২২০০ কোটি রুপি। বিসিসিআই কোষাধ্যক্ষ বলছেন, ‘চীনা কোম্পানির এই পৃষ্ঠপোষকতা ভারতীয় অর্থনীতিতে বিশাল অবদান রাখছে।’

ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম পিটিআইকে দেয়া সাক্ষাৎকারে অরুন ধুমাল বলেন, ‘আপনি যখন আবেগের সঙ্গে কথা বলবেন, তখন আপনি যুক্তি আগ্রাহ্য করে আবেগের বশেই অনেক কিছু বলে ফেলতে পারেন। কিন্তু বাস্তবতা তো ভিন্ন। আপনাকে বিষয়টা তো বুঝতে হবে। চীনা কোম্পানির কাছ থেকে পৃষ্ঠপোষকতা নিয়ে তো চীনা মানুষের কাজে লাগছে না, কাজে লাগছে ভারতীয় মানুষের।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমরা যখন চীনা কোম্পানিকে ভারতে তাদের কোনো প্রোডাক্ট বিক্রির অনুমতি দিই, তখন তারা সেই বিক্রিত পণ্যের অর্থ ভারতীয় কাস্টোমারদের কাছ থেকে নিচ্ছে। কিন্তু আমরা আমাদের টাইটেল স্পন্সরশিপ তাদের কাছে বিক্রি করেছি এবং তাদের কাছ থেকে যে অর্থ পাচ্ছি তার ৪২ ভাগ ট্যাক্স আমরা সরকারকে দিচ্ছি। সুতরাং, এটা তো ভারতেরই কাজে লাগছে, চীনের নয়।’

ভিভোর মত আরেকটি চীনা মোবাইল কোম্পানি অপ্পো গত বছর সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ভারতীয় ক্রিকেট দলের স্পন্সর ছিল। এরপর ব্যাঙ্গালুরু ভিত্তিক একটি শিক্ষামূলক টেকনোলজি কোম্পানি বিজু’স এই স্পন্সরশিপ কিনে নিয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here