ঢাকায় বসে ‘আমেরিকান ব্র্যান্ডের’ ওষুধ বানাচ্ছিলেন তাঁরা

0
119
post 2472

রাজধানীতে নকল ওষুধ তৈরি চক্রের পাঁচ সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। সোমবার রাজধানীর হাতিরপুল, রামপুরা ও মালিবাগ এলাকা থেকে তাঁদের গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তার ব্যক্তিরা হলেন লুবনা আক্তার (২৬), আনোয়ার কাজী (২৭), রাম চন্দ্র বসাক (৬২), এস এম তাজমুল তারিক (৬৩) ও  কনক কুমার সাহা (৫২)।

ডিবির গুলশান জোনের উপকমিশনার (ডিসি) মশিউর রহমান বলেন, আমেরিকা ও চীনা ব্র্যান্ডের জীবন রক্ষাকারী নকল ওষুধ তৈরি হচ্ছে, এমন খবর পেয়ে তাঁরা হাতিরপুল, রামপুরা ও মালিবাগে অভিযান চালান। এ সময় ভেজাল ওষুধসহ পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। অনুমোদনহীন এসব কারখানায় নারায়ণগঞ্জের জালকুড়িতে অবস্থিত আয়ুর্বেদিক দাওয়াখানায় তৈরি অনুমোদনবিহীন বিভিন্ন ট্যাবলেট ও ক্যাপসুল কেজি দরে কিনে এনে যে যার ইচ্ছেমতো জেনেরিক বা ট্রেড নাম দিয়ে কখনো হৃদ্‌রোগের ওষুধ, কখনো লিভারের ওষুধ, কখনো হাড়ের ওষুধ বলে চালিয়ে দেওয়া হচ্ছিল।

এ চক্রের সদস্যরা রাজধানীর চকবাজার ও মিটফোর্ড এলাকা থেকে বস্তাভর্তি প্লাস্টিকের সাদা–লাল–সবুজ রঙের বোতল, সিপি, সিলিকন সংগ্রহ করেন। পরে হাতিরপুল, নীলক্ষেত, ফকিরাপুল ও মালিবাগের বিভিন্ন কম্পিউটারের দোকান থেকে ইংরেজিতে ‘এমবুশ’ করে লেখা বিভিন্ন হলোগ্রাম, মনোগ্রাম এবং ঝকঝকে রঙিন স্টিকার ও লেবেল তৈরি করে।

লেবেলে বিভিন্ন ট্রেড কোম্পানির নামে আমদানি এবং মার্কেটিং করা হয়েছে বলে লেখা হয়ে থাকে। স্টিকার ও লেবেলগুলোকে ঘরে বসে প্লাস্টিকের বোতলে আটকে দিয়ে ভেজাল ওষুধ গুলশান-বনানী, কাকরাইল, ধানমন্ডি, উত্তরা ও মিরপুরের বিভিন্ন জায়গায় বিক্রি করা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here